Books

ক্রাচের কর্নেল PDF free Download

ক্রাচের কর্নেল pdf free download | kracer kornel pdf download Direct link : –  Link :-1 | Link :-2 | Link :-3Link :-4Link :-5Link :-6

শাহাদুজ্জামানের ক্রাচের কর্নেল না হলে হয়ত আমাদের কাছে অজানা থেকে যেত কর্নেল তাহেরের মত অসমসাহসী বিপ্লবি। ক্রাচের কর্নেল না হলে হয়ত অকুতোভয় দেশপ্রেমিক মুক্তিযুদ্ধের সেক্টর কমান্ডার থেকে যেত বিতর্কিত।
শাহাদুজ্জামানের ক্রাচের কর্নেল তাই শুধু বই নয়, ইতিহাসের অন্ধকারে আটকে থাকা সত্যের প্রদীপকে প্রজ্বলিত করার প্রচেষ্টাও বটে।

bookক্রাচের কর্নেল (বাংলা একাডেমী পুরস্কারপ্রাপ্ত)
Author
Publisher
Edition7th Printed, 2015
Number of Pages350
ফাইল ফরমেটপিডিএফ ডাউনলোড
Languageবাংলা

ক্রাচের কর্নেল PDF free Download: এক কর্নেলের গল্প শোনা যাক। যুদ্ধাহত, ক্রাচে ভর দিয়ে হাটা এক কর্নেল। কিংবা এ গল্প হয়তো শুধু এ কর্নেলের নয়। জাদুর হাওয়া লাগা আরও অনেক মানুষের । নাগরদোলায় চেপে বসা এক জনপদের । ঘোর লাগা এক সময়ের ।  গল্পটি শুরু করা যাক লালমাটিয়ার এ শ্যাম্পুর বিরাট বিলবোর্ডটি থেকে। বিলবোর্ডটিতে দিনের শেষ আলো আছড়ে পড়ছে। তার ঠিক নিচে একা দাড়িয়ে আছেন নুৎফা। আকাশে মেঘ করেছে। বৃষ্টি হবে বুঝি বা। কোনো দূর দেশ থেকে শীত শীত হাওয়া আসছে। একটা আকাশি রঙের চাদর গায়ে জড়িয়েছেন লুৎফা। শিরিশ গাছের কয়েকটি পাতা উড়ে এসে পড়ছে লুৎফার চাদরে। লুৎফা সেই কর্নেলের স্ত্রী। তিনি দাড়িয়ে আছেন তার ছোট ছেলে মিশুর জন্য । মিশুর অফিসের বাস প্রতিদিন এ শ্যাম্পুর বিলবোর্ডের নিচে এসে দীড়ায়। লুৎফা সেই বাসের জন্য অপেক্ষা করছেন অন্যমনস্ক, বিষণ্ন । যেন অন্য কোনো গ্রহের ধুলো লেগে আছে তার গায়ে । বাস থেকে নামলে মিশুকে নিয়ে একটি রিকশায় উঠবেন লুৎফা ।

ক্রাচের কর্নেল epub: লাল আকাশকে পেছনে রেখে বাড়ি ফিরবেন তারা । কেউ কোনো কথা বলবেন না। এভাবেই চলছে প্রতিদিন । এরকমই নিয়ম বেঁধে দিয়েছেন ডাক্তার ।  মিশুকে নিয়ে সমস্যায় আছেন লুৎফা। সাইকিয়াট্রিস্টের চিকিৎসাধীন আছে মিশু। মিশুর সাম্প্রতিক লেখা কবিতাটি পড়ে সাইকিয়াট্রিস্ট চিন্তিত। কবিতা মিশু লেখে মাঝে মাঝে । সম্প্রতি সে লিখেছে, “খুব ঠাণ্ডা মাথায় আমি একজনকে হত্যা করতে চাই।’ তারপর এ কবিতাজুড়ে অদ্ভুত সব ইমেজ । সে নাকি মানসপটে একটি গোলাপি ট্রেনকে ঝিকঝিক করতে করতে ছুটে যেতে দেখে। প্রতিদিন সকাল সাড়ে আটটায় মহাখালী রেল ক্রসিং-এ সেই গোলাপি ট্রেনটি আসে । তখন খুব হাওয়া বয় চারদিকে । রেললাইন আর ট্রেনের চাকা পরস্পরকে লেপ্টে থাকে। এশুর মনে হয় যেন দুটি ধাতব ঠোট, চুম্বন করছে পরস্পরকে । মনোলোকে সে রেল ক্রসিং এ দীড়িয়ে এ মায়াবী প্রেমের দৃশ্য দেখে। দমকা হাওয়ায় তার চুল উড়ে, শরীর কীপে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
error: Content is protected !!